ঢাকা, রবিবার ২৯ মার্চ ২০২০, ১৫ই চৈত্র, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ


Notice: Undefined variable: i in /home/bornomalatv/public_html/wp-content/themes/smrlit/single.php on line 10

কবি নজরুলে রমরমা কোচিং বাণিজ্যের অভিযোগ

প্রকাশিত : ০৪:২৭ অপরাহ্ণ, ৭ আগস্ট ২০১৯ বুধবার ৬৫ বার পঠিত

নিউজ ডেস্ক
alokitosakal

ঢাকার কবি নজরুল সরকারি কলেজের শিক্ষকদের বিরুদ্ধে রমরমা কোচিং বাণিজ্য চালিয়ে যাওয়ার অভিযোগ করেছে শিক্ষার্থীরা। তাদের অভিযোগ, কলেজের কমপক্ষে ১০ শিক্ষক ক্লাসের চেয়ে বেশি সময় দিচ্ছে কোচিংয়ে। এছাড়া, ওই শিক্ষকের কাছে প্রাইভেট বা কোচিং না করলে ইনকোর্সে নম্বর কম দেওয়া হয় বলে অভিযোগ শিক্ষার্থীদের।

জানতে চাইলে কলেজের বাংলা ২য় বর্ষের এক শিক্ষার্থী জানান, শিক্ষকরা ক্লাসের চেয়ে কোচিংয়ে বেশি গুরুত্ব দেওয়া হয়। শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে পড়ানো হচ্ছে নাম মাত্র। শিক্ষকের কাছে কোচিং না করলে পরীক্ষায় পাস করব কী করে। তাই আমি বাধ্য হয়ে কোচিংয়ে পড়ি। বাংলা বিভাগে শিক্ষক থাকলেও কোনো কোনো দিন ক্লাসে শিক্ষকের দেখাও মেলে না।

এ প্রসঙ্গে নাম কয়েকজন শিক্ষার্থী বলেন, ১ ঘণ্টা করে মাসে ১২ দিন তাদের পড়ানো হয়। কোচিং ফি বাবদ মাসে ১৫শ থেকে ২ হাজার টাকা করে নেওয়া হয়। এমন অনেক শিক্ষক রয়েছেন যার কাছে প্রাইভেট না পড়লে পরীক্ষায় ভালো নম্বর পাওয়া যায় না। ইনকোর্স মার্ক তাদের হাতে থাকে তাই বাধ্য হয়েই কোচিংয়ে পড়তে হয়।

শিক্ষকদের ফোন দিয়ে ক্লাসে আনতে হয় অভিযোগ করে ব্যবস্থাপনা বিভাগের ২য় বর্ষের আরেক শিক্ষার্থী বলেন, আমাদের ২য় বর্ষে মোট ক্লাস হয়েছে ৬ দিন। শিক্ষকরা ক্লাসে আসে না, তদের ফোন দিয়ে ক্লাসে আনতে হয়। তারা কোচিংয়ে বেশি গুরুত্ব দেন।

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে বিষয়টি অস্বীকার করেন কলেজের ব্যবস্থাপনা বিভাগের বিভাগীয় প্রধান আলা উদ্দিন আল আজাদ।

শেয়ার করে সঙ্গে থাকুন, আপনার অশুভ মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ী নয়। আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি বর্ণমালা টিভি'কে জানাতে ই-মেইল করুন- bornomalatv@gmail.com আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।

বর্ণমালা টিভি'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

1

2

3

© ২০২০ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। বর্ণমালা টিভি | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বে-আইনি, ডেভোলপ ও ডিজাইন: রাইতুল ইসলাম